Home / STORY LESSON

STORY LESSON

সমাজের পতিতা! কেমন আছে সেই নিষিদ্ধ পল্লীর মেয়েটি। পর্ব-১

হাজার বছরের এক পুরাতন ব্যবসার নাম পতিতাবৃত্তি। লোকমুখে আরো বিচিত্র নাম আছে এর গণিকাবৃত্তি, বেশ্যাবৃত্তি, দেহব্যবসা ইত্যাদি। বিচিত্র এই দোকানীরাই আমাদের সমাজে পতিতা, গণিকা, বেশ্যা, রক্ষিতা নানাভাবে পরিগণিত হয়। যে প্রতিষ্ঠানে তারা বিক্রি করে মাপ-পরিমাপহীন এই পণ্য সেটিই পতিতালয়, গণিকালয় বা বেশ্যালয়। সভ্যতার বিবেচনায় একে অন্ধকার গলি বলা হয়ে থাকে। হয়তো অন্ধকার গলি বলেই আলোর ব্যাপক মানুষেরা চেনে না এ গলি, জানে না এ জগৎ। কিন্তু তারপরও সত্য, কৃষ্ণ গহ্বরের মত অস্তিত্বমান এই অন্ধকার গলি। খুব সুনির্দিষ্ট করে হয়তো বা বলা মুশকিল পৃথিবীর ইতিহাসে কবে কখন কিভাবে উৎপত্তি ঘটেছে বিচিত্র এ ব্যবসার। তবে যতদুর জানা যায় মধ্যযুগীয় বর্বরতার গর্ভে অর্থাৎ …

Read More »

চলুন ‘সেক্স এডুকেশন’কে হ্যাঁ বলি

আমরা কি নিজেদের শরীরকে চিনি? আমরা কি জানি আমাদের শারীরিক পরিবর্তন কেন বা বয়সের কোন সময়ে হয়? আমরা কি বুঝি যে কী কারণে শারীরিক পরিবর্তনের সাথে সাথে আমাদের মানসিক অবস্থারও পরিবর্তন ঘটে?এমন আরও বহু প্রশ্ন আছে যার উত্তর এক কথায় দেওয়া সম্ভব আর তা হচ্ছে ‘সেক্স এডুকেশন’। আমার নিজের এক আত্মীয়ের কথা মনে পড়ছে। ছেলেটি তখন সবে প্রাইমারি শেষ করে সেকেন্ডারি পর্যায়ে উঠেছে। একদিন তার মোবাইলের গ্যালারি অপশন ঘাটতে গিয়ে দেখলাম ছেলেদের প্রাইভেট পার্টের ছবি তোলা হয়েছে! বুঝলাম ছেলেটির ভেতরে তার শারীরিক পরিবর্তন নিয়ে কৌতূহল তৈরি হয়েছে। সে সময়টায় আরও একদিন তার ব্যবহার করা ল্যাপটপের সার্চ অপশনে গিয়ে দেখলাম ‘penis’ …

Read More »

এক ব্যর্থ মানুষ গড়ে তুললেন ১৮০ বিলিয়ন ডলারের কোম্পানি!

১৯৯৯ সালের কথা। ফেব্রুয়ারির ২১ তারিখে চীনের হাংঝু এ নিজের অ্যাপার্টমেন্টে বন্ধুদের বোঝাচ্ছিলেন জ্যাক মা। তার ১৭ জন বন্ধুর সামনে প্রেজেন্টেশন করছিলেন। নতুন এক ব্যবসা মাথায় এসেছে তার। সেখানে বন্ধুদের বিনিয়োগ করতে বলছিলেন। তার ওপর বিশ্বাস স্থাপন করতে বলছিলেন। কিন্তু জ্যাকের অতীতে কিছু ব্যর্থতার কাহিনী সবাই জানেন। স্কুলের কোর্সওয়ার্কে ফেল আর পরীক্ষা না দেওয়ার মাধ্যমে ব্যর্থ ছাত্রের দলে ছিলেন তিনি। তখন থেকেই ব্যর্থতা যেন তার পথ থেকে বিদায় নেয় না। প্রিয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির জন্য কয়েকবার আবেদন করেও সুযোগ পাননি। পরে প্রায় ৩০ ধরনের বিভিন্ন চাকরিতে আবেদন করে এবং প্রতিবারই প্রত্যাখ্যাত হন। দুটো ভিন্ন ভিন্ন বিজনেস ভেঞ্চারে যোগ দেন এবং বরাবরের …

Read More »

অবিশ্বাস্য! এমন জায়গাও পৃথিবীতেই রয়েছে!

এখানে পা রাখা মাত্রই পর্যটকদের চোখে ঝলসে ওঠে বেগনি-নীল-আশমানি-সবুজ-হলুদ-কমলা-লালের বাহার। আকাশে নয় এই রংমহল পাহাড়ের গায়েই। বঙ্কিমচন্দ্রের দাদা সঞ্জীবচন্দ্রের অনুসরণে যদি কোউ বলে বসেন, ‘বন্যেরা বনে সুন্দর, রামধনু অন্তরীক্ষে’, তাহলে তাঁকে হার মানতে হবে এক জায়গায়। শুধু আকাশে নয়, মাটিপাথরের ধরাতেও দেখা দিতে পারে রামধনু। গোটা একটা পর্বতশ্রেণি রেঙে উঠতে পারে সাতরঙের বাহারে। না কোনও কৃত্রিম কাণ্ড নয়, প্রকৃতির আজব খেয়ালে রামধনু পর্বত সত্যিই তৈরি হয়েছে চিনে। চিনের ঝাংগিয়ে দাংজিয়া ল্যান্ডফর্ম জিওগ্রাফিক্যাল পার্ক বিশ্বের বিস্ময় বলেই পরিগণিত। এখানে পা রাখা মাত্রই পর্যটকদের চোখে ঝলসে ওঠে বেগনি-নীল-আশমানি-সবুজ-হলুদ-কমলা-লালের বাহার। আকাশে নয় এই রংমহল পাহাড়ের গায়েই। মনে হয়ে কেউ যেন দানবীয় তুলিতে রং …

Read More »

বছরের পর বছর সময় নিয়ে বাবা-মা পারল না, একটা মেয়ে কিভাবে পারবে?

আমি আগে একটা স্কুলে জব করতাম,সেখানকার বেশিরভাগ টিচারই ছিল মেয়ে এবং বেশিরভাগই ছিল খুব সুন্দরী সুন্দরী। সেখানে গিয়ে এক মেয়ের সাথে পরিচয় হয়। নামটা বলতে চাচ্ছিনা, ধরি ওর নাম ‘অ’, ‘অ’ ওর নামের প্রথম অক্ষর তাই ‘অ’ই নিলাম। আমি জবে ঢোকার কয়েক মাস পরে ‘অ’ জবে ঢোকে। প্রথম দিন থেকেই আমি ‘অ’কে খুব খেয়াল করে দেখি। মেয়েটাকে এক কথায় দারুন সুন্দরী বলা যায়। লম্বা পাঁচ ফিট আড়াই বা তিন, স্লিম, গায়ের রং খুব ফর্সা, পোশাক খুব মার্জিত এবং রুচিসম্পন্ন এবং হাঁটা চলায়ও ওর ব্যাক্তিত্ব বোঝা যাচ্ছিল। ঐ সময়টাতে আমার ভাইয়ের জন্য বাসা থেকে মেয়ে খোঁজা হচ্ছিল তাই মেয়েটাকে পাত্রী হিসেবে …

Read More »

জঙ্গীদের প্রতি ঘৃনা বাড়ানোর বড়ি!

১) আজ মুসলমান সম্প্রদায়ের এক বড় উৎসব।আমার এধরনের লেখা ঠিক হচ্ছেনা তবু দেশের পরিস্থিতি আমাকে বাধ্য করছে এধরনের লেখার জন্য।দেশ শান্তিময় আর হবেনা বলবোনা, আমরা শুভ শক্তি এই বলে আমরা সহজে জিতে যাবো বা এই সংকট থেকে মুক্তি পাওয়া একেবারে সহজ ভেবে হাতগুটিয়ে বসে থাকলে আমরা জিতবোই কিন্তু সংকট কাটাতে আমাদের কষ্টই বেশি হবে। এখন প্রতিটি মুহুর্ত খুবই গুরুত্বপূর্ণ সজাগ ও থাকতে সমস্যা সমাধান ও করতে হবে।এমুহুর্তের প্রতিটি সিদ্ধান্তই বদলে দিবে রাষ্ট্রের নিরাপত্তা অনীহা অসচেতনতাই বদলে দেশের মানচিত্র কালো ছায়াই ডেকে যাবে এতে আমাদের ভাবমূর্তির রক্ষার সফলতা ও কাজে আসবেনা সেদিন বাকশক্তিটা কালো-হাতের চাপে ছোট হয়ে যাবে।জাতীয় সংকট নিরসনে আমাদের …

Read More »

সোহাগী জাহান তনুর খোলা চিঠি…

আমি সোহাগী জাহান তনু বলছি। চোখে অশ্রু আর এক বুক যন্ত্রনা নিয়ে লিখতে বসেছি। কখনো ভাবিনি এভাবে চলে যেতে হবে। তবুও পৃথিবীর মায়ার বন্ধন ছিন্ন করে না ফেরার দেশে চলে যেতে হয়েছে। ওরা আমাকে বাঁচতে দেয়নি। আমার মুখের ভাষা কেড়ে নিয়েছে। খুব নির্মম ভাবে ওরা আমাকে হত্যা করেছে। জীবন বাঁচাতে চিৎকার করে আকুতি মিনতি করেছিলাম ওদের কাছে। আমার চিৎকার তখন ওদের কানেই পৌঁছেনি। পাষন্ডরা আমাকে যন্ত্রনা দিয়ে দিয়ে হত্যা করেছে। আমিতো নারী। আমার মতো কোন না কোন নারী ওদের মা কিংবা বোন। একটা বারের জন্যও কি ওদের এই কথাটি মনে পড়েনি। আমিতো পড়ালেখা ও হাসি আনন্দের মধ্যে নিজের জীবনটাকে গড়তে …

Read More »

ভালবাসার নাকি সময়ের মূল্য …………… ?

একটি সত্য ঘটনা। আমার সকল বন্ধুদের প্রতি পুরোটা পড়ার অনুরোধ রইল। আরেক জনের জীবনে ঘটে যাওয়া ঘটনাটি নিজের মত করে গুছিয়ে লেখার চেষ্টা করেছি। ঘটনাটি ঘটেছে, কাপাসিয়া, গাজীপুর। আজ অনেকদিন রাসেলকে দেখিনা, কতদিন তা মনে নেই। তবে হঠাৎ করেই আজ তার দেখা মিলল। ওর সাথে কথা বলে জানতে পারলাম, ও একটি মেয়ের পিছনে এক বছর ধরে ঘুরঘুর করছে কিন্তু মেয়েটি পাত্তা দিচ্ছেনা। তো আমি বললাম আমাকে মিষ্টি খাওয়ার জন্য এক হাজার টাকা দিবি আমি একদিনেই ব্যাবস্থা করে দেব। রাসেলতো তখনই রাজী এবং এক হাজার টাকা অগ্রীম পরিশোধ করল। রাসেলকে সাথে নিয়েই মেয়ের স্কুলে যাওয়ার রাস্তায় বসে রইলাম, এক সময় পেয়েও …

Read More »

সুখের নীড়ে ভালোবাসার প্রাপ্তি !!!!

মেয়ে:- আমাকে বিয়ে করবা? ছেলে:- হুম। মেয়ে:-তোমাকে আমার বাবা মা মেনে নিবেনা, ছেলে:- তাহলে আর কি সবকিছু ছেরে চলে আসতে পারবা আমার কাছে? মেয়ে:- হুম পারবো,but কখনো কস্ট দিবানা তো? ছেলে:- নাহ আমি তোমাকে প্রমিস করতেছি কখনো কস্ট দিবোনা, but বেশি কিছু দিতে পারবনা, আমার যতটুকু সম্ভব তা দিয়ে রাখবো, যদি পারো থাকতে তাহলে এসো। মেয়ে:- আমি তোমাকে চাই আর কিচ্ছু বুঝিনা, এভাবে চলতে থাকে তাদের ভালোবাসার গল্প, কিছুদিন পর মেয়েকে দেখতে আসছে, ছেলে সরকারী চাকরী করে, তার বাবা মা ছেলেকে পছন্দ করলো, বিয়ের কথাবার্তা চলতেছে, মেয়ে তার বাবা- মা কে বললো তার bf এর কথা, তার বাবা মা রাজি …

Read More »

আমরা যদি না জাগি মা , ক্যামনে সকাল হবে ?

নীলক্ষেত গিয়েছিলাম কিছু কাজে। বাসায় ফিরব বলে অনেকক্ষন দাঁড়িয়ে আছি, রিকশা পাচ্ছিলাম না। যে রিকশাই দেখি, রিকশাওয়ালা ভাড়া প্রায় দ্বিগুণ চেয়ে বসে। মেজাজটা এমনিতেই খারাপ কারণ সহ্যের সীমা অতিক্রম করে ফেলছিলাম। হঠাৎ একজন হ্যাঙলা পাতলা মতন ছেলে আমার সামনে রিকশা নিয়ে এসে বলল, “স্যার কোথায় যাবেন?” আমি একটু অবাক হলাম, কারণ রিকশাওয়ালারা সচরাচর স্যার বলে না, “মামা বলে”; আমি তাকে বললাম বকশিবাজার যাব, বোর্ড অফিসের পাশে। সে আমার কাছে ঠিক ঠিক ভাড়া চাইল। আমি মোটামুটি আকাশ থেকে পড়লাম, মনে করলাম এতক্ষণ পরে মনে হয় আধ্যাত্নিক সাহায্য এসে হাজির হয়েছে। যাইহোক বেশি চিন্তা না করে তাড়াতাড়ি রিকশাই উঠে পড়লাম। মনে মনে …

Read More »

অতঃপর তাদের ভালোবাসা দিবস

টুংটুং শব্দ করে রিক্সা ছুটে চলেছে। চারদিকে ঝলমলে রোদ উঠেছে যেখানে সকালে কুয়াশার জন্য কিছুই দেখা যাচ্ছিল না। সময় যত গড়িয়েছে কুয়াশা কেটে গেছে আর রোদের তীব্রতা বাড়তে শুরু করেছে। সূর্যটা এখন ঠিক মাথার উপর। ঘামে শরীরের জামা কাপড় সব ভিজে গেছে, গামছা দিয়ে মুখটা মুছে নিল বাদল। গরমে একেবারে নাকাল অবস্থা, ফাল্গুন চৈত্র মাসে এই এক সমস্যা কখনও হাড় কাপানো শীত আবার কখনো ঠাঠা রোদ। আজকের পরিস্তিতি একটু ভিন্ন। চারদিকে কেমন যেন উৎসব মূখর পরিবেশ, তরুন তরুণী কত সাজেই না সেজেছে। জোড়ায় জোড়ায় বেরিয়েছে সবাই। সবার হাতেই ফুলের ছড়াছড়ি, কারো হাতে রক্তের মত লালগোলাপ আবার কারো হাতে রজনীগন্ধা। মেয়েরা …

Read More »

নীল রঙের শাড়িতে অপেক্ষার প্রহর !!!

রিয়া শিমুল গাছটার নিচে একলা বসে আছে। নীল রঙের শাড়ি পড়ে আসার কথা ছিলো তার। কিন্তু অনেক খুঁজেও মায়ের নীল রঙের শাড়িটা পায়নি সে। ভীষণরকম মন খারাপ করে শেষবধি নিজেরই নীল রঙের সালোয়ার কামিজ টা পড়ে নিয়েছে, সাথে নীল চাদর। রিয়াকে সব কাপড়েই মানিয়ে যায়, কিন্তু আজ একটু বেশিই অসাধারণ লাগছে তাকে। শীতের হিম হিম ঠান্ডা পড়া শুরু করে দিয়েছে। বিকেল গড়িয়ে এলো বলে। সাকিবের আসার কথা। কিন্তু প্রায় একটা ঘন্টা ধরে অপেক্ষা করেও সাকিবের দেখা মিলল না। রিয়া সেলফোন থেকে কল দিলো তার পরিচিত নাম্বারটিতে। রিং বেজে যাচ্ছে। কেউ পিক করছে না। রিয়ার টেনশন হচ্ছে। আরো কিছু সময় রিয়া …

Read More »